খেলার মাঠঃ রেইস ট্র্যাক

1365
chicagoland-speedway-1-c

সাইকেল, বাইক, রেইসিং কার, ঘোড়া কিংবা দৌড়বিদদের প্রতিযোগিতার জন্য আলাদা আলাদা ধরনের রাস্তা তৈরি করা হয় যা রেইস ট্র্যাক নামে পরিচিত।এসব ট্র্যাকের পাশে দর্শকদের জন্য গ্রান্ডস্ট্যান্ড থাকে। কোন কোন মটর রেইসের ট্র্যাক speedways নামে পরিচিত। আর সাইকেলিং এর ট্র্যাককে বলে velodrome অন্যদিয়ে অফ রোডে মটর রেইসিং কে বলে Motocross

Safe Internet

প্রাচীন সভ্যটা থেকেই রেইসিং ট্র্যাকের উন্নতি ঘটতে দেখা যায়। রোমান সম্রাজ্যে সার্কাসের অংশ হিসেবে এসব তৈরি হয়েছিল।এসব ট্র্যাকের পাশে প্রায় ২০০০০০ দর্শকের দেখার ব্যবস্থা করতো।১১৭৪ খ্রিস্টাব্দে লন্ডনের নিউমার্কেট এলাকায় রেইস ট্র্যাক তৈরি হয়।অন্যদিকে মটররেইস ট্র্যাক প্রথম তৈরী হয় ১৯১১ সালে।

অটোমোবাইলের উন্নতির সাথে সাথে বিশ শতকের শুরুর দিকে রেইসিং ট্র্যাকের ব্যপক উন্নতি সাধন করা হয়। এরই ধারাবাহিকতায়য় ১৯০৯ সালে তৈরি হয় The Indianapolis Motor Speedway

১৯০০ সালের ট্র্যাক গুলো ছিল উঁচু ,বাঁকানো, কাঠের যাকে বলা হতো  board tracks। বর্তমানে ট্র্যাকগুলো তৈরি করা হয় দর্শকদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে।এছাড়াও ট্র্যাকের পাশে রাখা হয় পিট লাইন, গ্যারেজ, মিউজিয়াম, হোটেল, কনফারেন্স সেন্টার, এমন কি গলফ কোর্স।

যেহেতু রেইসিং ট্র্যাক প্রতিযোগিতার জন্য তাই এতে থাকে স্টার্টিং পয়েন্ট এবং এন্ড পয়েন্ট।প্রতিটা পয়েন্টে ব্যবহার করা হয় ফ্ল্যাগ যা ভিন্ন ভিন্ন অর্থ বহন করে। অনেক সময় পুরো ট্র্যাককে কয়েকটা ভাগে ভাগ করা হয় যাতে নির্দিষ্ট সময় পর পর রেইসাররা কত দূরত্ব অতিক্রম করল।

কোন কোন ট্র্যাক উপবৃত্তাকার করা হয় যাতে থাকে বাঁক এবং উচ্চতার পরিবর্তন; এই পরিবর্তন প্রতিযোগিদের মধ্যে চ্যালেঞ্জ এনে দেয়।

অনেক সময় শহর বা গ্রামের ভেতরে গাড়ি চলার রাস্তাকে অস্থায়ী রেইস ট্র্যাক হিসেবে ব্যবহার করা হয়; এদেরকে বলে street circuit