হুয়াউয়েইর নয়া স্মার্ট ওয়াচ

হুয়াউয়েই বাজারে এনেছে তাদের প্রথম অ্যান্ড্রয়েড ঘড়ি ‘হুয়াউয়েই ওয়াচ’। সর্বশেষ মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস-এ তারা অ্যান্ড্রয়েড-নির্ভর এই ঘড়িটি উন্মুক্ত করে।

এ পর্যন্ত বাজারে বেশ কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের অ্যান্ড্রয়েড-নির্ভর ঘড়ি বা স্মার্ট ওয়াচ এসেছে। কিন্তু হুয়াউয়েইর এই ঘড়িটি দেখতে প্রায় সাধারণ ঘড়ির মতন।

ClassTune

গোলাকার ডায়াল, সাধারণ ঘড়ির মত বেল্ট, এমনকি ঘণ্টার জন্য ঘড়ির চারপাশে দাগকাটাও রয়েছে।

যদিও ঘড়িটি দেখতে একদমই বিলাসবহুল নয়, বরং খুবই সাধারণ, তারপরও বলতে হচ্ছে এ জাতীয় ঘড়ির মধ্যে এই ঘড়িটি একটি যুগান্তকারী আবিষ্কার।

ঘড়িটিতে রয়েছে ১.৪ ইঞ্চি ৪০০×৪০০ OLED ডিসপ্লে। এই নতুন ধরণের ডিসপ্লের প্রতি ইঞ্চি ২৮৬ পিক্সেল। এর ডিসপ্লের কালার এবং কনট্রাস্টের কারণে এটাকে এখন পর্যন্ত সেরা স্মার্টওয়াচ ডিসপ্লে বলে গণ্য করা হচ্ছে। ঘড়িটির ফ্রেমের ব্যাস ৪২ মিলিমিটার। হাতেও বেশ স্বচ্ছন্দেই পরা যাবে এই স্মার্টওয়াচ।

স্মার্টওয়াচ অনেক কার্যকরী হলেও নানা কারণে এটি নিয়মিত ব্যবহার করাটা স্বাচ্ছন্দ্যপূর্ণ নয়। কিন্তু এসব স্মার্টওয়াচ যদি দেখতে গতানুগতিক ঘড়ির মতই হয় তাহলে এটি ব্যবহার করা আরো রুচিশীল ও আরামদায়ক হবে বলেই সবাই ধারণা করছেন।