স্মার্টফোন স্লো হয়ে গেলে করণীয়

Slow-Smartphone
ছবি : সংগৃহীত

বর্তমানে প্রতি ১০ জনের মধ্যে ৭ জন স্মার্টফোন ব্যবহার করেন। কিন্তু প্রায়শই শোনা যায় স্মার্টফোনটি আগের মত আর কাজ করে না। যত দিন যাচ্ছে কাজের গতি কমছে। অর্থাৎ আপনার স্মার্টফোনটি স্লো কাজ করছে। কিন্তু কেন এমনটা হয়? তা কী জানা আছে? জেনে নিন কারণগুলো।

ব্যাকগ্রাউন্ড অ্যাপ
মোবাইল কেনার সময়ে যে ব্যাকগ্রাউন্ড ডিসপ্লেটি থাকে তা অনেক সময়েই অনেকের পচ্ছন্দ হয় না। আর তার কারণেই মূলত অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহারকারীরা প্লেস্টোর বা অন্য কোনও সাইট থেকে কখনও চলমান আবার কখনও এইচডি ওয়ালপেপার ডাউনলোড করে নিজের ফোনের ব্যাকগ্রাউন্ড ইমেজ সেট করেন। আসলে জানেন কী এটি একটি অন্যতম কারণ আপনার ফোনটিকে স্লো করে দেওয়ার। কারণ, সব স্মার্টফোনেই একটি সীমিত মেমরি অর্থাৎ র্যাম থাকে। অতিরিক্ত অ্যাপ ফোনে রাখায় তার জায়গা কমে। যার জেরেই ফোনটি স্লো হয়ে যায়। যদি নতুন ব্যাকগ্রাউন্ডটিকে রেখে ফোনটিকে আগের গতিতেই কাজ করাতে চান, তবে ফোন থেকে আগে পুরানো কিছু অ্যাপ আনইনস্টল করুন। তারপরই ডাউনলোড করুন নতুন অ্যাপটি।

Safe Internet

মেমরি স্টোরেজ ফুল
স্মার্টফোনে অতিরিক্ত অ্যাপ, ছবি, গান, ভিডিও রাখার কারণে অনেক সময়েই আপনার ফোনের মেমরি ভর্তি হয়ে যায়। তার ফলেই আপনার ফোনটি স্লো চলে। কারণ র্যাম যথেষ্ট মেমরি স্পেস দিতে পারে না। এর থেকে বাঁচতে যত দ্রুত সম্ভব ফোন থেকে অপ্রয়োজনীয় অ্যাপ, গান, ছবি, ভিডিও বা অন্য কোনও ফাইল ডিলিট করুন।

পুরাতন ব্যাটারি
স্মার্টফোনের ব্যাটারি অনেক দিনের পুরানো হলে অনেক সময়ে ফোন স্লো কাজ করে। ফোন অহেতুক গরম হয়ে যায়। এর থেকে স্মার্টফোনটিকে বাঁচাতে সময় থাকতেই বদলান ব্যাটারি।

ওএস এবং অ্যাপ আপডেট
স্মার্টফোনের ওএস অর্থাৎ অপারেটিং সিস্টেম সবসময়ে আপডেট রাখা খুবই জরুরি। নতুন ওএস আসলে আপডেট করে ফেলুন। একইসঙ্গে আপডেট রাখুন মোবাইলে ব্যবহৃত অ্যাপগুলো। এই দুটি সঠিক আপডেট থাকলে আপনার ফোন স্লো হওয়ার সম্ভবনা অনেকটাই কম থাকে।

তথ্যসূত্র: এই সময়