কুকি মনস্টারের জন্মদিনে ৯টি মজার তথ্য

পৃথিবী বিখ্যাত শিশুতোষ অনুষ্ঠান 'সিসিম স্ট্রীট'-এর জনপ্রিয় চরিত্র 'কুকি মনস্টর' কেইবা না চিনে। নীল পশমে ঢাকা পিং-পং বলের মত গোল গোল দুটো চোখের অদ্ভুত প্রাণী এই 'কুকি মনস্টর'।

যে কিনা অম-অম-নম-নম শব্দ করে কুকি খেতে ভালবাসে! সেই ছোট্ট কুকি মনস্টারের জন্মদিন আজ ২ নভেম্বর।

ClassTune

জন্মদিন উপলক্ষে তার সম্পর্কে কিছু অদ্ভুত তথ্য জানানো যাক আপনাদের-

– কুকির আসল নাম সিড।

– প্রথমবার প্রায় কুকি মনস্টারের মত একটি অবয়ব দেখা যায় একটি খাবারের বিজ্ঞাপনে। জিম হেনসনের তৈরি সেই চরিত্রটির নাম ছিল তখন 'হুইল স্টিলার'।

এরপর অনেক পরিবর্তন শেষে হুইল স্টিলার চরিত্রটি কুকি মনস্টারের প্রায় কাছাকাছি রূপ নিয়ে আর্নল্ড নামের এক 'মাঞ্চিং মনস্টার' হিসেবে পর্দায় আসে  ফ্রিটো-লে পটেটো চিপসের বিজ্ঞাপনে। আর এই অবয়বগুলোর তখন ছিল দানবের মতই তীক্ষ্ণ ধারালো দাঁত।

– কুকি মনস্টারের প্রথম পছন্দ চকলেট চিপস্ কুকি আর দ্বিতীয় পছন্দ ওটমিল কুকি।

– পিনাট বাটার কুকি আর হেযেল নাট কুকি খেলে কুকি মনস্টারের অ্যালার্জি হয়।

– কুকি মনস্টার সেটে খুব কম সময়ই আসল কুকি খায়। কারণ বেশিরভাগ সময়ই সে রাইস ক্র্যাকার খেয়ে থাকে যেগুলোকে কুকির মত করে সাজানো হয়ে থাকে।

– ১৯৯৫ সালে নির্মিত ‘কুকি মনস্টারস বেস্ট বাইটস’ নামক একটি ভিডিওতে জানানো হয় যে ইংরেজি বর্ণমালার মধ্যে সি(C)শব্দটি হল পৃথিবীর সব কুকি মনস্টারের প্রিয় শব্দ।

– ১৯৭৬ সালে প্রচারিত একটি পর্বে কুকি নিজেকে পৃথিবীতে অবশিষ্ট শেষ কুকি মনস্টার হিসেবে দাবি করে।

– মিশন ইম্পসিবলের প্যারোডি ‘রেডি টু লার্ন’-এ এজেন্ট কুকির সম্পূর্ণ শরীর দেখানো হয়। তাছাড়া ‘দ্যা স্ট্রীট উই লিভ অন’ আর ‘অ্যাবি ইন ওয়ান্ডারল্যান্ডে’ও কুকির পা দেখানো হয়।

– 'হ্যাপি বার্থডে, কুকি মনস্টার' নামে আছে একটি গল্পের বই যা ফেলিস হস লিখেছিলেন ৪ থেকে ৮ বছর বয়েসী শিশুদের জন্য।