মাইলসের ৪০ বর্ষপূর্তির কনসার্ট ২৪ ডিসেম্বর

50
Miles

মাইলসের ৪০ বর্ষপূর্তির সর্বশেষ আয়োজটি থাকছে ২৪ ডিসেম্বর ঢাকার বসুন্ধরা ইন্টারন্যাশনাল কনভোকেশন সেন্টারে। পুরো আয়োজনে থাকছে উইন্ডমিল অ্যাডভারটাইজিং লিমিটেড।

গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর বনানীস্থ ক্লাব নটরডেমে মাইলসের সদস্য এবং সহযোগি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাদের নিয়ে এক নৈশ্বভোজের আয়োজন করে উইন্ডমিল। এসময় ২৪ ডিসেম্বর গালা কনসার্টেও ঘোষণা দেয় প্রতিষ্ঠানটি। অনুষ্ঠানে মাইলসসহ উপস্থিত ছিলেন ওয়ারফেজ, ভাইকিংস, মাকসুদ, ফিডব্যাকসহ স্বনামধন্য কয়েকজন গীতিকার।

ClassTune

অনুষ্ঠানে মাইলস ব্যান্ডের সদস্যরা  জানান, মাইলসের চল্লিশ বছর পূর্তির সর্বশেষ আয়োজনটি তারা বাংলাদেশেই রেখেছেন । অনুষ্ঠানের বাড়তি আকর্ষণ হিসেবে তাদের পাশাপাশি থাকছে অন্যান্য জনপ্রিয় ব্যান্ডও। উপস্থিত দর্শক এবং ভক্তদের জন্য ঐদিন থাকবে বেশ কিছু সারপ্রাইজ। থাকছে কনটেস্ট এ বিজয়ী ভক্তদের মাইলসের সঙ্গে গান গাওয়ার সুযোগ যা খুব শিগ্রহী জানানো হবে।

আয়োজক প্রতিষ্ঠান উইন্ডমিলের সিইও সাব্বির রহমান তানিম বলেন, মাইলস আমাদেও দেশের অনেক কিছুর প্রথমের সঙ্গে যুক্ত। ভক্তদের কাছে এই আয়োজনকে তুলে ধরতে অনেকগুলো চমক নিয়ে হাজির হবে উইন্ডমিল। এ ব্যপারে শিগ্রই ঘোষণা আসছে।

মাকসুদ ও ঢাকা ব্যান্ডের অন্যতম সদস্য মাকসুদুল হক মাকসুদ বলেন, মাইলসের প্রতিটি কাজই অনেক গোছানো। চল্লিশ বছর লম্বা একটা সময়। শুধুমাত্র একজন ব্যান্ড সদস্য নয়, বন্ধু হিসেবে শুরু থেকেই সঙ্গে ছিলাম এখনও আছি।

ওয়ারফেজের শেখ মনিরুল আলম টিপু বলেন, একটা ব্যান্ডে চল্লিশ বছর পার হওয়ার পেছনে যতো গল্প থাকে, শ্রম থাকে বা ত্যাগ থাকে এটা একটা সাধারণ মানুষ বুঝবে না। নিজেদের জনপ্রিয়তা একই রেখে এগিয়ে যাওয়া একটা বিশাল ব্যাপার। যা মাইলস করে দেখিয়েছে। নতুনদের জন্য মাইলস একটি অনুপ্রেরণার প্রতীক হয়ে আছে থাকবে। তাদের জন্য রইলো অনেক অনেক শুভকামনা।

অনুষ্ঠানে বিডব্যাকের লাবু রহমান বলেন, মাইলস শুধু একটি ব্যান্ডই নয়, একটি প্রতিষ্ঠানে রুপ নিয়েছে। এই প্রতিষ্ঠান একদিনে তৈরি হয়নি। মাইলসের সবাই প্রথম শ্রেণীর মিউজিশিয়ান। সে কারণেই এখনও মাথা উঁচু করে দাড়িয়ে আছে মাইলস। তাদের এমন কিছু গান আছে যা পৃথিবীর শেষ পর্যন্ত থাকবে। মাইলসের এই কালের স্বাক্ষীতে আমরাও থাকছি।

ভাইকিংসের তন্ময় বলেন, চল্লিশ বছর পার করা অনেক বড় একটি ঘটনা। মাইলস আমাদের জন্য একটি অনুকরণীয় ব্যান্ড। এটা দেখে আসছি আমাদের সময় থেকে এখন পর্যন্ত। তাদের কাছে আমাদের অনেককিছু শেখার আছে।

আয়োজক প্রতিষ্ঠান উইন্ডমিলের পক্ষ থেকে জানানো হয়, মাইলসের চল্লিশ বছর ঘিরে থাকবে নানা আয়োজন। থাকছে অন্যান্য জনপ্রিয় ব্যান্ডের মাইলসের প্রতি সম্মান প্রদর্শন। যার মধ্যে থাকছে ভক্তদের মাইলসের সঙ্গে গান গাওয়ার সুযোগ, মাইলস গানের কথা এবং তার পেছনের কাহিনী প্রদর্শনী। বাংলাদেশের ব্যান্ড সঙ্গীতে অত্যন্ত স্মরনীয় এই কনসার্টটিতে আসার জন্য সকলের প্রতি আমন্ত্রণ রইল।