মুক্তি পাচ্ছে ‘মিশন ইমপসিবল : রগ নেশন’

দুর্দান্ত সব বাইক স্টান্ট, টানটান উত্তেজনা আর ভরপুর একশন মুভির অপর নাম 'মিশন ইমপসিবল। উড়ন্ত প্লেন থেকে নায়ক ঝুলছেন অথবা ব্যস্ত রাস্তায় বাইক নিয়ে সব বাধা উড়িয়ে দিয়ে শত্রুর চােখে ধুলাে দেয়ার দৃশ্য দেখা দেখা যায় হলিউডের নামকরা একশন মুভি সিরিজ ‘মিশন ইমপসিবল’-এ।

ClassTune

গত বৃহস্পতিবার এই সিরিজের সর্বশেষ সিনেমাটির প্রিমিয়ার হয়ে গেলো অষ্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনায়। বলে রাখা ভালো, এই শহরেই শুটিং হয়েছে এই সিনেমার।

নতুন এই পর্বের নাম ‘মিশন ইমপসিবল– রগ নেশন’। এই সিরিজের পঞ্চম সিনেমা এটি। এর মধ্যেই সিরিজটি মোট ২ বিলিয়ন ডলার আয় করেছে। সর্বশেষ এই সিনেমার পর আরও নতুন পর্ব নির্মাণের পরিকল্পনাও রয়েছে মুভির প্রযোজকের।

সিনেমার কেন্দ্রীয় চরিত্র এবং প্রযোজক টম ক্রুজ ও সহশিল্পী জেরেমি রিনার, অ্যালেক বাল্ডউইন, সাইমন পেগ এবং রেবেকা ফারগুসন প্রিমিয়ার অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। ১৯ শতকের এক সুসজ্জিত থিয়েটার ভিয়েনা স্টেট অপেরা হাউসে অনুষ্ঠিত হয় এই প্রিমিয়ার শো।

১৯৯৬ সালে ‘মিশন ইমপসিবল’ সিনেমা দিয়ে প্রথম যাত্রা শুরু হয় এ সিরিজের। প্রথম থেকেই সিনেমার কেন্দ্রীয় চরিত্র গুপ্তচর ইথান হান্টের চরিত্রে অভিনয় করছেন জনিপ্রয় হিরো 'টম ক্রুজ'। একই সাথে তখন থেকেই তিনি সিনেমার প্রযোজক।

এই সিনেমার আরেকটি বিশেষ আকর্ষণ হচ্ছে, এই সিনেমার একশন দৃশ্যে তিনি কোন বডি ডাবল ব্যবহার করেন না। বিপদজনক সব স্টান্ট টম নিজেই করে থাকেন।

এর আগের সিরিজে তিনি দুবাইয়ের বিশ্বের অন্যতম সুউচ্চ বিলাসবহুল হোটেল বুর্জ আল খলিফা থেকে লাফিয়ে পড়েছিলেন।

এই সিনেমায় তিনি উড্ডয়নরত প্লেনের বাইরের দিক ধরে ঝুলে থেকে একটা ঝুঁকিপূর্ণ দৃশ্যে অংশ নেন। এ সবই তার নিজের পারফর্ম করা।

জুলাইয়ের ৩০ তারিখ যুক্তরাজ্যে এবং ৩১ তারিখ আমেরিকায় মুক্তি পেতে যাচ্ছে 'মিশন ইমপসিবল – রগ নেশন'।