মানবদেহে কোষ প্রতিস্থাপনে সফল হলো জাপান

365

দীর্ঘ গবেষণার পর এই প্রথমবারের মতো মানবদেহে কোষ প্রতিস্থাপনে সফল হয়েছেন জাপানের একদল গবেষক। তারা গবেষণাগারে তৈরি করা চোখের কোষ ৭০ বছর বয়সী একজন বৃদ্ধার চোখে প্রতিস্থাপন করেছে।

ClassTune

ইয়াসুও কুরিমত নামের এক চিকিৎসকের নেতৃত্বে তিন সদস্যের চক্ষু বিশেষজ্ঞ দল এই অস্ত্রোপচারের কাজটি করেন। বায়োমেডিকেল রিসার্স অ্যান্ড ইনভেশন হাসপাতালে কোষ প্রতিস্থাপনের পুরো কাজটি হয়।

এই হাসপাতালের পাশেই অবস্থিত আরআইকেইএন সেন্টার ফর ডেভেলপমেন্টার বায়োলজি (সিডিবি) নামের একটি গবেষণাগারের চক্ষুবিশেষজ্ঞ মাসায়ো তাকাহাশি ওই কোষ উৎপন্ন এবং পরীক্ষা-নিরীক্ষা করেন। অস্ত্রোপচারের চারদিন আগে জাপানের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় তাকাহাশিকে মানবদেহে কোষ প্রতিস্থাপনের পরীক্ষার অনুমতি দেয়।

তাকাহাশি প্রথমে ওই বৃদ্ধার ত্বকের কোষ নেন। এরপর সেটাকে আইপিএস সেলে এবং পরে রেটিনাল সেলে রূপান্তর করা হয়। জানা গেছে, অস্ত্রোপচারের পর রোগীর খুব বেশি রক্তক্ষরণ বা গুরুতর সমস্যা হয়নি।

এক বিবৃতিতে কুরিমত বলেন, “এই চিকিৎসা পদ্ধতি ও অস্ত্রোপচারে যে ঝুঁকি তার পুরোটাই ওই রোগী নিয়েছেন।পরীক্ষামূলক এই প্রতিস্থাপনে রাজি হয়ে তিনি যে সাহসের পরিচয় দিয়েছেন সে জন্য আমি তার প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানাই।”
কিয়োটো বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টেম-সেল বিজ্ঞানী শিনয়া ইয়ামানাকাকেও ধন্যবাদ জানিয়েছেন কুরিমত। বলেন, “ওনার আইপিএস সেল উদ্ভাবন ছাড়া এই চিকিৎসা গবেষণা সম্ভব হতো না।”
উল্লখ্যে শিনয়া ইয়ামানাকা ২০১২ সালে নোবেল পুরষ্কার পান।