কফি কমায় হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি

Coffe
ছবি : সংগৃহীত

কফি আলঝেইমার’স বা স্মৃতিশক্তি লোপ পাওয়া রোগ প্রতিরোধ করে, মাইগ্রেনের ব্যাথা সারাতে সাহায্য করে কিন্তু আবার উচ্চ রক্তচাপের জন্য দায়ী এই কফি। পৃথিবীর অন্যতম জনপ্রিয় এই পানীয় নিয়ে এ ধরণের কথা আমরা হরহামেশাই শুনে থাকি। আর এসব আলচনায় এবার নতুন মাত্রা যোগ করছে আরেকটি গবেষণালব্ধ ফলাফল। বিজ্ঞানীরা বলছেন, কফি আমাদের হৃৎপিণ্ডের জন্য ভালো।

‘জার্নাল হার্ট’ নামক পত্রিকায় প্রকাশিত এ গবেষণায় দেখা যায়, দক্ষিণ কোরিয়ার যেসব নারী ও পুরুষ দিনে তিন থেকে পাঁচ কাপ কফি পান করেন তাদের হৃৎপিণ্ডে ব্লকেজ বা জটিলতা কম ধরা পড়ে।

ClassTune

ক্যাংবুক স্যামসাং হাসপাতালে এই গবেষণাটি করা হয় যাতে ২৫ হাজার কর্মচারী অংশ নেয়। ৩-৫ কাপ কফিকে ‘সাধারণ’ ধরে করা এ গবেষণা থেকে কফি মানুষের স্বাস্থ্যের জন্য ভালো না খারাপ সে বিতর্ক আবারও উঠে এসেছে। কেননা আগের সব রিপোর্টই বলছে কফি কোলেস্টেরল বাড়ায় এবং উচ্চ রক্তচাপ সৃষ্টি করে।

মজার ব্যাপার হচ্ছে কোরিয়ান এই গবেষণা আসলে কফি নিয়ে ছিল না। তারা মূলত যেসব কারণে হৃৎপিণ্ডের ধমনীতে সমস্যা দেখা দেয়, যেগুলোর কারণে হার্টে ব্লকেজ বা হার্ট অ্যাটাকের মত ঘটনা ঘটে, সে বিষয়গুলো নিয়ে গবেষণা করছিলেন। ধমনীর গায়ে ক্যালসিয়াম জমে হৃৎপিণ্ডে রক্তপ্রবাহ বন্ধ হয়ে যায়। ধূমপান করলে, নিয়মিত ব্যায়াম না করলেও এই সমস্যা দেখা দেয়।

কিন্তু এই গবেষণার ফলাফলে দেখা যায় যারা দিনে অন্তত ৩ কাপ কফি পান করে তাদের হৃৎপিণ্ডের ধমনীতে ক্যাসিয়ামের পরিমাণ কম। এই ফলাফল কফি পানকারীদের জন্য সুখবর বটে। তবে বিষয়টা সম্পর্কে নিশ্চিত হতে আরও অনেক গবেষণা হওয়া প্রয়োজন বলে অনেকেই মন্তব্য করছেন।