ক্রেনের কার্যপ্রণালী

lifting crane
ছবি : সংগৃহীত

বিদেশ থেকে আমদানি করা অসংখ্য জিনিস যখন কন্টেইনারে করে সমুদ্রবন্দরে আনা হয় তখন এতো ভারী কন্টেইনারগুলো কিভাবে এক জায়গা থেকে আরেক জায়গায় নেওয়া হয়? কিংবা দালান নির্মানের সময় ভারী ভারী পিলার কিভাবে এক স্থান থেকে আরেক স্থানে সরানো হয়? এমন ভারী জিনিস সরানোর বা নেওয়ার ক্ষেত্রে সেরা উপায় হলো ক্রেন।

ক্রেন এমন একটি যন্ত্র যার মাধ্যমে ভারী বস্তু উপরে উঠানো বা নিচে নামানোর কাজ করা যায়। এছাড়া বস্তুকে এক স্থান থেকে আরেক স্থানে সরানোর কাজও করা যায়। এই বিপুল শক্তির যন্ত্রটি কীভাবে কাজ করে?

একটি ক্রেন তৈরির ক্ষেত্রে ৩টি বিষয়ের দিকে মনোযোগ দিতে হয়। ভারী বস্তু তোলার ক্ষমতা থাকতে হবে, ওজন তোলার সময় যাতে ক্রেন নিচে গড়িয়ে পড়ে না যায় আর ওজন তোলার সময় ক্রেন যাতে ভেঙ্গে না যায়। বিশালাকার ক্রেন দেখতে জটিল মনে হলেও আসলে এটি বেশ কয়েকটি সরল যন্ত্রের সমন্বয়ে গঠিত। যেমন – লিভার, পুলি, হাইড্রলিক সিলিন্ডার ইত্যাদি। সরল যন্ত্রের মূলনীতি হচ্ছে যান্ত্রিক সুবিধা ব্যবহার করে বলবৃদ্ধি করার ব্যবস্থা।

ব্যালেন্স ক্রেনে আনুভূমিক একটি বীম থাকে যাকে বলা হয় লিভার। আমরা হয়তো লিভারের সাথে আগেই পরিচিত হয়েছি। লিভার এমন একটি যন্ত্র যেখানে অল্প শক্তি ব্যয় করে অধিক কাজ করা যায়। ক্রেনের লিভারও একই নিয়ম মেনে চলে। ক্রেনের লিভারে তুলনামূলক ছোট মাথায় ভারী বস্তু তুলে দেওয়া হয় এবং লম্বা মাথায় অল্প বল প্রয়োগ করে ভারী বস্তু নড়াচড়া করা হয়।

তবে, সব ক্রেনই লিভারের নীতিতে কাজ করে না। যেমন জিব ক্রেন কাজ করে পুলির মাধ্যমে। জিব ক্রেনে একটি হেলানো ভাররক্ষা থাকে যাকে বলা হয় জিব যা পুলিকে সাপোর্ট দেয়। পুলির চারপাশে একাধিক দড়ি বা তার পেঁচানো হয় আর যে ভারী বস্তুকে তোলা হবে তার চারপাশেও সেই দড়ি পেঁচানো থাকে। যখন দড়ির অপর পাশে হাত দিয়ে বা অন্য কোন যন্ত্র দিয়ে টান দেওয়া হয় তখন সেই টানের ফলে ভারী বস্তুটি উপরে উঠে যায়। এছাড়া, হাইড্রলিক সিলিন্ডারের মাধ্যমেও ভারী বস্তু তোলা যায়। মনে রাখতে হবে যে, এই সরল যন্ত্রগুলো আমাদের প্রয়োগকৃত বলের পরিমান বহুগুনে বৃদ্ধি করে ভারী বস্তু উঠাতে বা সরাতে সহায়তা করে।