প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের ডাটাবেজ করবে সরকার

প্রাক-প্রাথমিক থেকে প্রাথমিক শ্রেণির শিক্ষার্থীদের ডাটাবেজ তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এজন্য তাদের প্রোফাইল তৈরি করা হবে। মঙ্গলবার (৫ মার্চ) এ লক্ষে ‘প্রাথমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের প্রোফাইল প্রণয়ন’ শীর্ষক একটি প্রকল্পের অনুমোদন দিয়েছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর। সরকারি অর্থায়নের এই প্রকল্পে ব্যয় হবে ১৬৪ কোটি চার লাখ ৬৬ হাজার টাকা। ২০১৯ সালের মার্চ থেকে ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে এই প্রকল্প বাস্তবায়ন করা হবে।

ClassTune

সূত্র মতে, ‘প্রাথমিকের বাচ্চাদের জন্য একটি স্পেশালাইজ প্রোফাইল তৈরি করা হবে। তাদের গতিবিধি, জন্ম তারিখ- এ রকম ভাইটাল ইনফরমেশন (গুরুত্বপূর্ণ তথ্য) এতে থাকবে। একটা কার্ড থাকবে। প্রথম শ্রেণি থেকে পঞ্চম শ্রেণি পর্যন্ত শিশুরা এই কার্ড কন্টিনিউ (চলমান থাকবে) করবে। উপবৃত্তি পেল কি না পেল, কত টাকা পেল- এগুলো এখানে থাকবে।’

এই প্রকল্পের আওতায় প্রাক-প্রাথমিক থেকে পঞ্চম শ্রেণির দুই কোটি ১৭ লাখ শিক্ষার্থী এবং প্রকল্পের দ্বিতীয় ও তৃতীয় বছরে নতুন ভর্তি হওয়া প্রায় ৭০ লাখ শিক্ষার্থীর প্রোফাইল তৈরি করা হবে।

এছাড়া প্রকল্পের আওতায় প্রতিবছর প্রাথমিক বিদ্যালয় ও এবতেদায়ী মাদ্রাসায় নতুন ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের প্রোফাইল তৈরি করা হবে। সেই সঙ্গে প্রাথমিক পর্যায়ের প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে একক পরিচিতি (আইডি) নম্বর প্রদান করা এবং আইডির মাধ্যমে বই সরবরাহ, ভর্তি, উপবৃত্তিসহ অন্যান্য শিক্ষা সেবা প্রদান করা হবে।

প্রাথমিক শিক্ষায় দেশের শতভাগ শিশুকে নিয়ে আসার সরকারি পদক্ষেপের ফলে প্রতিটি শিশুর একটি একক আইডি প্রদান করা হলে শুরু থেকেই একজন শিক্ষার্থীর বিভিন্ন ধরনের প্রাসঙ্গিক তথ্য ধারণ ও ব্যবহার করার সুযোগ সৃষ্টি হবে।